২৪ জুলাই, ২০২৪, বুধবার

জীবন-জীবিকার কথা চিন্তুা করেই তুলে নেওয়া হয়েছে বিধিনিষেধ:স্বাস্থ্যমন্ত্রী

Advertisement

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানিয়েছেন, মহামারী করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে টানা ১৯ দিন চলা বিধিনিষেধ মানুষের জীবন ও জীবিকার তাগিদেই তুলে নেওয়া হয়েছে। তিনি আরও বলেন, এখন আমাদের যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি, টিকা আর মাস্ক ব্যবহারেই ভরসা করতে হবে।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৬তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০২১ উপলক্ষে আজ শনিবার (১৪ আগস্ট) বেলা ১১টায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) ডা. মিল্টন হলে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি।

মন্ত্রী আরও বলেন, সারাদেশে টিকা কার্যক্রম বেগবান করা হচ্ছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায়। আপনারা মাস্ক ব্যবহার করবেন। নির্দিষ্ট সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখবেন। কঠোর বিধিনিষেধ জীবন-জীবিকার তাগিদে খুলে দেওয়া হলেও মনে রাখতে হবে জীবনের মূল্য অনেক বেশি। মন্ত্রী আরও বলেন, এখন আমরা করোনার দুর্যোগে আছি। সম্পূর্ণ পৃথিবী এই দুর্যোগে আক্রান্ত হয়েছে। এ দুর্যোগে মারা গিয়েছে ৪০ লক্ষাধিক মানুষ। তবে বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় আমাদের দেশে নিয়ন্ত্রণে আছে এ দুর্যোগ।

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সময়ে অনেক দেশে দারিদ্র্যসীমা বাড়লেও আমাদের অনেক নিচে নেমেছে। অন্যদিকে আমাদের বৃদ্ধি পেয়েছে গড় আয়ু। শিক্ষা ক্ষেত্রেও দেশ এগিয়ে গেছে। দেশে ১০০টিরও বেশি বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে। প্রবাসে আমাদের কোটি লোক কাজ করেন। তারা দেশে রেমিট্যান্স পাঠায়।

প্রধান অতিথি হিসেবে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ।

উক্ত অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী অধ্যাপক ডা. আ ফ ম রুহুল হক, বাংলাদেশ চিকিৎসা গবেষণা পরিষদের (বিএমআরসি) সভাপতি অধ্যাপক ডা. সৈয়দ মোদাচ্ছের আলী, বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) সভাপতি ডা. ,মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) সভাপতি অধ্যাপক ডা. এম ইকবাল আর্সলান প্রমুখ।

অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ সভায় সভাপতির বক্তব্যে বলেন, জাতীয় শোককে শক্তিতে রূপান্তর করে বাংলার দুঃখী মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে এবং কাঙ্ক্ষিত অর্থনৈতিক মুক্তি এনে দিতে পারলেই জাতির পিতার বিদেহী আত্মা শান্তি পাবে। আর এ লক্ষ্যেও উদ্দেশ্যেকে সামনে রেখেই দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে বিরামহীন নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তিনি।

আজকের সময়ে আমাদের প্রত্যাশা, ১৭ কোটি মানুষ জননেত্রী শেখ হাসিনার সব কর্মকাণ্ডে সহযোগিতা করবেন। গতকাল শুক্রবার (১৪ আগস্ট) কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটি করোনা সংক্রমণ ঊর্ধ্বগতির মধ্যেই বিধিনিষেধ তুলে নেওয়ার সিদ্ধান্তে উদ্বেগ জানিয়েছে।

কমিটির সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ সহিদুল্লা স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, যথযাথ স্বাস্থ্যবিধি শিথিল করার বিষয়ে সরকার তাড়াহুড়ো করেছে। আ এ কারণে সংক্রমণ ফের বাড়তে পারে। তখন সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার আহ্বান জানিয়েছেন তারা।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisementspot_img
Advertisement

ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে পাশে থাকুন

Advertisement