২২ জুন, ২০২৪, শনিবার

ফ্লোরিডায় গুলি করে চার মাসের শিশুসহ চারজনকে হত্যা

Advertisement

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা স্টেটে স্থানীয় সময় গতকাল রোববার এক ব্যক্তি গুলি করে চারজনকে হত্যা করেছেন। নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে একজন নারী ও তাঁর তিন মাস বয়সী সন্তান রয়েছে। হত্যা করার সময় ওই নারীর কোলে তাঁর সন্তান ছিল। হত্যার পর ওই ব্যক্তি পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেন।

ওই ব্যক্তির নাম ব্রায়ান রিলে (৩৩)। তিনি আমেরিকান নৌ বাহিনীর সাবেক সদস্য। ব্রায়ান রিলের গুলিতে ১১ বছরের একটি মেয়েও আহত হয়েছে। তার অস্ত্রোপচার চলছে। পক কাউন্টির শেরিফ গ্রেডি জাড এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, ১১ বছরের ওই মেয়ের শরীরে সাতটি গুলি লেগেছিল।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে জানা যায়, কাউন্টি শেরিফ গ্র্যাডি জাড বলেন, রিলে নিজেও গুলিতে আহত হন। পুলিশের সঙ্গে তাঁর গোলাগুলি চলে। তাঁকে একটি হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। জাডের ভাষ্য, ইরাক ও আফগানিস্তান যুদ্ধে নিরাপত্তাকর্মী ও দেহরক্ষী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন রিলে। তাঁর বান্ধবী তদন্তকারীদের বলেন, রিলে মানসিক চাপ এবং পেশাগত কারণে হতাশায় ভুগছিলেন। ওই বান্ধবীর সঙ্গে রিলের চার বছর ধরে সম্পর্ক রয়েছে।

জাড আরও বলেন, এক সপ্তাহ আগে রিলের মানসিক স্বাস্থ্যের আরও অবনতি হয়। রিলে তাঁর বান্ধবীকে বলেছিলেন, তিনি ঈশ্বরের সঙ্গে কথা বলেন।

জাড বলেন, রিলে গত শনিবার রাতে প্রথম ওই বাড়িতে ঢোকেন। সেখানে তিনি অসংলগ্ন কথাবার্তা বলেন। ওই পরিবারের সঙ্গে তাঁর তর্ক হয়। পুলিশ যাওয়ার পর রিলে সেখান থেকে চলে যান। গতকাল সকালে তিনি আবার ওই বাড়িতে ফিরে যান। সেখানে তিনি ৪০ বছরের এক ব্যক্তি, ৩৩ বছরের এক নারী ও তাঁর সন্তানকে গুলি করে হত্যা করেন। ওই বাড়ির পাশেই তিনি ওই নারীর ৬২ বছর বয়সী মাকে গুলি করে হত্যা করেন। এমনকি তিনি ওই পরিবারের পোষা কুকুরটিকেও গুলি করে হত্যা করেন।

জাড আরও বলেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছালে তাদের সঙ্গে রিলের গোলাগুলি হয়। রিলে একপর্যায়ে পুলিশের বন্দুক কেড়ে নেওয়ার চেষ্টাও করেন।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisementspot_img
Advertisement

ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে পাশে থাকুন

Advertisement