৩ মার্চ, ২০২৪, রবিবার

বিশ্বে ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু কমলেও বেড়েছে সংক্রমণ

Advertisement

বিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু কমলেও বেড়েছে সংক্রমণ। এ সময়ে এক হাজার ১৩৮ জনের মৃত্যুর পাশাপাশি সংক্রমিত হয়েছেন দুই লাখ ৭৪ হাজার ৭৭ জন। 

এ নিয়ে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬৭ লাখ ১৭ হাজার ৪৬৩ জনে। এ পর্যন্ত ভাইরাসটিতে মোট সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬৬ কোটি ৯২ লাখ ৭৭ হাজার ২০৩ জনে। করোনা থেকে সেরে উঠেছেন ৬৪ কোটি ৭ লাখ ৩৭ হাজার ৩২৬ জন।

বুধবার (১১ জানুয়ারি) সকালে বৈশ্বিক পর্যায়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার আপডেট দেওয়া ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। দৈনিক সংক্রমণে শীর্ষে রয়েছে জাপানে। দৈনিক প্রাণহানির তালিকায় যুক্তরাষ্ট্রের পরেই দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে জাপান। প্রাণহানির এ তালিকায় এর পরেই রয়েছে ফ্রান্স, ব্রাজিল, হংকং, রাশিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া, অস্ট্রেলিয়া ও তাইওয়ানের মতো দেশগুলো।

জাপানে গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন ৭৫ হাজার ৫০৪ জন এবং মারা গেছেন ২৫৩ জন। করোনা মহামারির শুরু থেকে পূর্ব এশিয়ার এ দেশটিতে এখন পর্যন্ত মোট শনাক্ত ৩ কোটি ৬ লাখ ৪৭ হাজার ৮৫৯ জন এবং মারা গেছেন ৬০ হাজার ৪১১ জন।

যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন ১৬ হাজার ৯৪৩ জন এবং মারা গেছেন ২৭৪ জন। করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১০ কোটি ৩১ লাখ ৫১ হাজার ৮৪৩ জন সংক্রমিত এবং মারা গেছেন ১১ লাখ ২১ হাজার ৭২৫ জন।

ফ্রান্সে গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন ১১ হাজার ৭১৫ জন এবং মারা গেছেন ১১৫ জন। করোনা মহামারির শুরু থেকে এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৩ কোটি ৯৪ লাখ ২১ হাজার ১৪৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ১ লাখ ৬৩ হাজার ১০৫ জন মারা গেছেন।

সংক্রমণের দিক থেকে চতুর্থ ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৮২ জন এবং নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৪৪ হাজার ৭৩৯ জন। এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ৬৫ লাখ ৬০ হাজার ৪৯৭ জন এবং ৬ লাখ ৯৫ হাজার ৩১ জন মারা গেছেন।

রাশিয়ায় একদিনে শনাক্ত ৩ হাজার ৩২ জন এবং মারা গেছেন ৪৭ জন। এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত ২ কোটি ১৮ লাখ ৩২ হাজার ৭৬৮ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ৯৪ হাজার ১৬৮ জনের।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisementspot_img
Advertisement

ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে পাশে থাকুন

Advertisement