১৯ মে, ২০২৪, রবিবার

বিয়েতে অস্বীকৃতি: চুম্বন শেষে প্রেমিকের বুকে গুলি করলেন তরুণী

Advertisement

দেখা করার জন্য প্রেমিককে ডেকে পাঠিয়েছিলেন প্রেমিকা। দেখা হতেই প্রেমিককে জড়িয়ে ধরেন প্রেমিকা, করেন চুম্বনও। এরপরই প্রেমিকের বুকে বন্দুক ঠেকিয়ে গুলিবর্ষণ করেন তিনি। তবে ভাগ্য ভালো হওয়ায় অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচেছেন প্রেমিক।

বুধবার (১৫ ডিসেম্বর) রাতে চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের পূর্ব বর্ধমানের কাটোয়া শহরে। ঘটনার জেরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। অভিযুক্ত প্রেমিকার নাম মনীষা খাতুন। ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছেন তিনি। অবশ্য তার খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ।

পুলিশের বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো বলছে, বর্ধমানের কাটোয়া শহরের কেশিয়া মাঠপাড়ার বাসিন্দা লালচাঁদ শেখের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে বাগানেপাড়ার মনীষা খাতুনের। প্রায় তিন বছর ধরে তাদের মধ্যে সম্পর্ক ছিল।

কিন্তু সম্প্রতি তাদের মধ্যে সম্পর্কের অবনতি হয় বলে পুলিশকে জানান লালচাঁদ। মনীষাকে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানান তিনি। একপর্যায়ে কাটোয়া ছেড়ে ঝাড়খণ্ডেও চলে গিয়েছিলেন প্রেমিকা মনীষা।

পুলিশ জানিয়েছে, দিন দু’য়েক আগেই ঝাড়খণ্ড থেকে কাটোয়ায় ফিরে আসেন মনীষা। বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে কাটোয়ার সার্কাস ময়দানের একটি গলিতে লালচাঁদকে দেখা করার জন্য আসতে বলেন তিনি।

এরপর ফিল্মি কায়দায় চুম্বন করে বুকে গুলি চালিয়ে দেন। গুলি লালচাঁদের জ্যাকেট ভেদ করে পেট ঘেঁষে বেরিয়ে যায়। অল্পের জন্য বেঁচে যান লালচাঁদ।

ইতোমধ্যেই কাটোয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন লালচাঁদ। প্রেমিকা মনীষা খাতুনের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। অবশ্য ঘটনার পর থেকেই পলাতক ওই তরুণী।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisementspot_img
Advertisement

ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে পাশে থাকুন

Advertisement